আঙিনা

‘ইংরেজি টিংরেজি কিছু’

Nail cutter, saloon, আর girder – এই তিনটে শব্দ নিয়ে বলব বলে গতদিনের আলোচনা শেষ করেছিলাম। এই তিনটে শব্দই খুব common. আমরা বাংলা বলার সময়ই এত ব্যবহার করে থাকি এগুলোকে যে, এদেরকে আগন্তুক শ্রেণীর বাংলা শব্দ বললেও বোধহয় অত্যুক্তি হবে না। কিন্তু, ঐ যে বলে, ‘গপ্পো আছে’!

প্রথমে ধরা যাক nail cutter. এই শব্দটা ভালো ইংরেজি নয়, জানেন? দেখুন, cut টা একটা বড় ব্যাপার। নখের মত ছোট ছোট জিনিস cut করবেন কী আবার? নখ cut করা হয় না – clip করা হয়। সেকারণে ঐ ছোট্ট যন্ত্রটির নাম nail clipper. Cutter নয়। এই ছোট বড়’র ব্যাপারটা, বিষয়টা একই (কাটা) থাকা সত্ত্বেও, মাঝেমধ্যেই এর’ম ভিন্ন শব্দ দাবি করে ইংরেজি ভাষায়। যেমন ধরুন, আপনি আপনার পুরো সংসার গুটিয়ে এক বাড়ি থেকে অন্য বাড়িতে যাচ্ছেন পাকাপাকি ভাবে/বহু বছরের জন্য, বাস করতে। এই প্রসঙ্গে কথা বলতে গেলেই একজন average ভারতীয় আপনাকে বলবে সে shift করছে। এটাও ভুল। প্রশ্ন করতেই পারেন, ভুল কেন? Shift অর্থাৎ এক স্থান থেকে অপর স্থানে সরা- হ্যাঁ সে বিষয়ে কোনো সন্দেহ নেই। সমস্যাটা হল ‘সরা’টা কত বড় ‘সরা’! টেবলের একধার থেকে একটা গেলাসকে বা তরকারির গামলাকে টেবলেরই আরেকধারে রাখলেন। এটা shifting. কয়েকটা চ্যেয়ারকে ঘরের উত্তরদিক থেকে দক্ষিণ, পশ্চিম, বা পূবে নিয়ে গেলেন; আপনার focus আপনি এক object থেকে অপর object এ নিয়ে গেলেন – এগুলো সবই shift এর উদাহরণ।

কিন্তু, পোঁটলা পুঁটলি, আসবাব, জামা জুতো ছাতা এবং সর্বোপরি নিজের ঠিকানাটাকেই এক বাড়ি থেকে অন্য বাড়িতে নিয়ে যাচ্ছেন যখন, তখন ত আর সেটা shift থাকছে না মহাশয়! আপনি তখন move করছেন। হ্যাঁ, এটা অনেক বড় movement তাই I am moving to… বলতে হবে আপনাকে। মাথায় রাখবেন এটা। দেখেননি বিজ্ঞাপনে সেসব কাম্পানি যারা টাকার বিনিময়ে আপনার সব জিনিসপত্র বেঁধে ছেঁদে সুন্দর করে এক ঠিকানা থেকে আরেক ঠিকানায় পৌঁছে দেয় তারা নিজেদেরকে packers and movers বলে! Shifters বলতে শুনেছেন কখনও?

এবার আসি saloon এ। সেলুন। দেখি অভিধান কী বলছে। এই শব্দের আদি অর্থ হল “পানশালা”। হ্যাঁ ঠিকই পড়েছেন। Bar, pub, tavern ইত্যাদির প্রতিশব্দ হল saloon. কিন্তু, এই অর্থে শব্দটির প্রয়োগ ইদানীং কালে খুবই কমে এসেছে। এখন saloon বলতে তবে কী বোঝায়? এখন সাধারণতঃ সেলুন বলতে সিডান গাড়ি বোঝানো হয়। চারিদিক থেকে বদ্ধ আরামপ্রদ বড় গাড়ি যাতে বড় বড় সব দরজা থাকে।ঝটকা খেলেন ত? চুল কাটাকাটি, মাথা ঘাড় মালিশ, ব্লিচ, ফেশিয়াল, স্ক্রাব প্রভৃতি কিচ্ছু পেলেন না এই saloon এ। এবার তবে চলুন সেখানে যাই যেখানে এসব পাওয়া যাবে। সে-জায়গার নাম salon. মূল ফরাসী শব্দটিরও বানান একই কিন্তু, উচ্চারণ হল ‘সালোঁ’। এরই anglicised অর্থাৎ ইংরেজি রূপ হল ‘স্যালন’। এমন একটা জায়গা যেখানে মানুষ পয়সা খরচ করে beauty treatment নিতে যায়।

অতএব, চুল দাড়ি কাটা, পেডিকিওর নেয়া, ফেশিয়াল করা এসবের জায়গার নাম কখনোই ‘সেলুন’ নয়। প্রতি পাঁচে চারজন বাঙালি বললেও নয়। সেটা সব সময়ই ‘স্যালন’। গাছের কান্ডে ভাঙা আয়না ঝুলিয়ে ভোঁতা ক্ষুরে দাড়ি কামিয়ে দিয়ে খুবসে ফিটকিরি ঘষে দেয়া জায়গাটিও স্যালন আবার ল্যাকমে বা হাবিবের ঝাঁ চকচকে, এক সিটিং এ হাজারের বেশি বিল হওয়া establishment টিও স্যালন। এটা বলে দেয়া খুব জরুরী ছিল তার কারণ, এধরণের সব স্যালন এদেশে জাঁকিয়ে বসার পর popular perceptionটা অনেকটা এরকম দাঁড়িয়েছে যে, স্যালন = বড়লোকের সেলুন! তবে, মজার কথা কী জানেন? Saloon শব্দটা কিন্তু Salon থেকেই বিবর্তিত হয়েছে। যদিও, সেটাও আপনাকে শব্দদুটোকে পরস্পরের প্রতিশব্দ হিসেবে ব্যবহার করার অনুমতি দিচ্ছে না। মানুষ আর শিম্পাঞ্জির পূর্বপুরুষ ত একই ছিল বিবর্তনের এক পর্যায়ে। এখন সে-যুক্তিতে আপনাকে কেউ শিম্পাঞ্জি বললে আপনি থোড়াই ছেড়ে কথা বলবেন!

তাহলে? তাহলে সামনের পর্বে girder দিয়ে আলোচনা শুরু! ভালো থাকবেন সবাই আর, “কাঞ্জিক” এর পুরোটাই অতি অবশ্যই পড়বেন। বিদায়!

Comments (1)

  1. অনেক ভুল জানা শুধরে দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ..

Leave a Reply